মা, মা, মা এবং বাবা-Ma, Ma, Ma Ebong Baba।। আরিফ আজাদ বই রিভিউ

“মা,বাবা” শব্দ দুইটি সবসময় আমাদের হৃদয়ের অত্যন্ত কাছের দুটি শব্দ। আল্লাহ্ সুবহানাল্লাহ্ ওয়া তা’ আলা পবিত্র কোরআনে আদেশ করেছেন,  ‘... তোমরা মাতা_ পিতার প্রতি সদ্ব্যবহার করবে; তাদের একজন অথবা উভয়ই তোমার জীবদ্দশাই বার্ধক‍্যে উপনীত হলে তাদেরকে ‘উফ’ শব্দটিও বলো না এবং তাদেরকে দমক দিও না। তাদের সাথে সম্মানসূচক কথা বলো।‘ কিন্তু পরিতাপের বিষয় হলো আমাদের বাবা_মা অধিকাংশ সময়ই আমাদের কাছ থেকে যথাযথ মূল‍্যায়ন পান না। আমরা যখন বড় হই, দুনিয়াকে চষে বেড়াতে শিখি, যখন মায়ের আঁচল কিংবা বাবার হাতের আঙুল ছাড়াই অমরা চলতে পারি, তখন আমরা তাদের ভুলে যাই।

বই: মা, মা,মা এবং বাবা


“মা,মা,মা ও বাবা” বইটি মূলত কিছু টুকরো টুকরো  গল্প দিয়ে সাজানো। জীবন থেকে নেওয়া ৩৫ টি গল্প আর ৯ টি কুরআন ও হাদীস থেকে নেওয়া গল্প দিয়ে সাজিয়ে বইটি লিখা হয়েছে। বইয়ের প্রতিটি গল্প প্রতিটি সন্তানকে ভাবিয়ে তোলার মতো।   বাবা_মা’র প্রতি যে সন্তান উদাসীন, যার হৃদয়ে বাবা_মা’র জন‍্য ভালোবাসার ঘাটতি দেখা দিয়েছে, যার হৃদয় তাদের প্রতি কঠিন হয়ে পড়েছে, সেই কঠিন হৃদয়, অনুর্বর অন্তর আর বিস্মিত আত্মাকে জাগিয়ে তোলার প্রয়াস নিয়েই মূলত বইটি লেখা হয়েছে। এই বইটি পড়ে কাদঁবে না, আবেগ আপ্লুত হবে না ___ এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর হবে।


★প্রচ্ছদ এবং নামকরনঃ

প্রথমেই বইটির এত সুন্দর  নামটিই বইটির প্রতি একটা আলাদা টান সৃষ্টি করে।বইটিতে একটি সন্তানের জন্য মা এবং বাবার করা প্রতিটি ত্যাগ,আদর,স্নেহ ভালোবাসা,দোয়া প্রত্যেকটি ঘটনা এমন ভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন যে বইটির নামকরন একদম পরিপূর্ণ  বলে মনে হয় আমার কাছে। আর প্রচ্ছদটাও মাশাল্লাহ অতি চমৎকার আর সাবলীলভাবে করা হয়েছে। 


★বইয়ের সার-সংক্ষেপঃ

বইটিতে মোট ৪৪ টি অধ্যায় রয়েছে যা শুরু হয়েছে প্রকাশকের দোয়ার মাধ্যমে এবং শেষ হয়েছে এক ইয়েমেনির ঘটনা দিয়ে।এর মাঝে সম্পাদকের মনোভাব থেকে শুরু করে মা এবং বাবাকে নিয়ে প্রতিটি অধ্যায়,প্রতিটি বাক্য সাজানো হয়েছে। 

সম্পাদক আরিফ আজাদের কথা গুলো সত্যি মন ছুঁয়ে গেছে। ওনি নিজে বলেছেন, এই বইটি সম্পাদন করার সময় ওনার চোখ গড়িয়ে কত অশ্রু ঝরেছে এবং তার সামনে থাকা ল্যাপটপের কি বোর্ড ভিজেছে সেই অশ্রুতেই বুঝা যায় বইটির গুরুত্ব কতখানি। সালেম পাঠ অধ্যায়টির মাধ্যমে একটি সন্তানের জন্ম,তার সুন্দর ভাবে বেড়ে উঠা এবং বাবা মায়ের করা কাজকর্মের ফল স্বরুপ তার ফলাফল কি হতে পারে সুগভীর ভাবে তা বুঝনো হয়েছে। অন্য মানুষ কে নিয়ে ঠাট্টা করা,এবং মানুষদের হেও করা,হিংসা করা সবকিছুর পরিনাম কি হতে পারে তাও বুঝানো হয়েছে এই অধ্যায়ে।আবার যে সন্তান কে দুচোখে দেখতে পারে না,যাকে একটুও আদর করে না,সেই সন্তানের উসিলায় আল্লাহ সুবহানাহু ওয়াতাআ'লা তার বাবার তাকদিরে কত সুন্দর হেদায়াত লিখে রেখেছেন। এরপর আছে সন্তান বড়ো হলে নিজের বৃদ্ধ মা কে বৃদ্ধাশ্রমে পাঠানোর মত মর্মান্তিক ঘটনা।সন্তানের বাবার কাছে চাওয়া উপহার,কিন্তু সেই বাবাকে ভুল বুঝে বাবাকে ছেড়ে চলে যাওয়া, পরে আবার অনুতপ্ত হয়ে ফিরে আসা,কিন্তু ততদিনে তার বাবাকে হারিয়ে ফেলা।

আরো রয়েছে প্রেমিকা কে পাওয়ার জন্য মা কে খুনের মতো নির্মম ঘটনা।তবে ঐ সন্তান পরবর্তী তে আল্লাহর একজন পরহেজগার বান্দা হয়ে যান তওবা করে। লেখক এই বইয়ে বর্তমান সন্তানদের উপমা স্বরূপ একদিন রেস্টুরেন্টে নিয়ে একটা ঘটনা উল্লেখ করেন।যেটা আমার কাছে অনেক অনেক মধুর লেগেছে।এ ছাড়া ও লেখক মায়ের চোখে পৃথিবী, বাবাকে নিয়ে মামলা, মায়ের বদৌলতে সঠিক পথের দিশা এমন আরো অনেক অধ্যায় উল্লেখ করেছেন বইটিতে। লেখক মা বাবার গুরুত্ব আরো একটু জোরদার করার জন্য তিনি সাহাবিদের কয়েকটা ঘটনা তুলে ধরেছেন। ইসলামে বাবা মায়ের অবস্থান কতটুকু সে সবের বর্ণনা সুন্দর করে উপস্থাপন করেছেন।


★ব্যক্তিগত মতামতঃ 

ব্যক্তিগত ভাবে বইটি আমার খুব ভালো লেগেছে। বইয়ের প্রতিটি ঘটনা থেকেই আমাদের কিছুনা কিছু জানার আছে।  এই বইটি পরার পরে নিজেদের করা এমন এমন কিছু কাজের কথা মনে হবে যেগুলো আমাদের করা উচিত হয়নি। অন্যদের মনে হবে কি না আমার জানা নেই। তবে আমার মনে হয় বইটি পড়ার পরে প্রত্যেকেরই একটু হলেও নিজের করা কাজের কথা বা ব্যাবহারের কথা মনে পড়বে।


বইঃ মা,মা,মা এবং বাবা 

লেখকঃআরিফ আজাদ 

প্রকাশনীঃসমকালীন প্রকাশনী

সংকলন ও সম্পাদনাঃ আরিফ আজাদ 

পৃষ্ঠাঃ১৭৬

প্রচ্ছেদমূল্যঃ২৩৫ টাকা

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ